হোমনায় নকল জুস তৈরির কারখানা, ৩ জনের জেল

হোমনা প্রতিনিধি ● মোর্শেদুল ইসলাম শাজু হোমনায় নামবিহীন নকল জুস তৈরির একটি কারখানা আবিষ্কার করেছে ভ্রাম্যমান আদালত। উপজেলা সদর থেকে দুই কিলোমিটার দক্ষিণে পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড হরিপুর খেয়াঘাট সংলগ্ন বাজারের ভেতর একশটি টিনের ঘরে কারখানাটি গড়ে তুলেছে হরিপুর গ্রামের জয়নাল আবেদীন।

মঙ্গলবার দুপুরে ওই কারখানায় অভিযান চালায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও ইউএনও কাজী শহিদুল ইসলামের ভ্রাম্যমান আদালত। অভিযান পরিচালনার বিষটি আঁচ করতে পেরে পালিয়ে গেছে কারখানার মূল মালিক জয়নাল আবেদিন। এসময় কারখানায় কর্মরত তিন শ্রমিক একই গ্রাামের শাহ আলমের ছেলে সালমান (১৮), আবদুল মান্নানের মেয়ে হাজেরা (১৫) ও সালাহ উদ্দিনের স্ত্রী রেহানা বেগমকে (৩০) আটক করা হয়। কারখানাটি সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে। আটক প্রত্যেককে এক লাখ টাকা করে জরিমানাসহ এক বছর করে কারাদণ্ড অনাদায়ে আরও তিন মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেন ভ্রাম্যমান আদলত।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, কারখানাটি প্রায় এক বছর ধরে চালিয়ে আসছে জয়নাল।

ইউএনও কাজী শহিদুল ইসলাম বলেন, নকল জুস তৈরির কারখানাটির খবর পেয়ে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে সেখানে প্রচুর পরিমাণে রঙ, ক্যামিকেল পাওয়া গেছে। এক লাখ ত্রিশ হাজার পিছ নকল জুস ধ্বংস করা হয়েছে। কারখানাটি সিলগালা করে তিন জনকে এক বছর করে জেল ও এক লাখ টাকা করে জরিমানার আদেশ দেওয়া হয়েছে।

error: দুঃখিত কুমিল্লার বার্তার কোন কনটেন্ট কপি করা যায় না।