শাহজালালে ‘স্বর্ণমানব’ আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক ● ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আজ বৃহস্পতিবার এক ব্যক্তিকে আটক করে দুই কেজি ৬০০ গ্রাম সোনা উদ্ধার করেছে ঢাকা কাস্টমস হাউজের প্রিভেন্টিভ টিম। ওই ব্যক্তির শার্টের কফলিনের ভেতর থেকে ১০টি, কলারের ভেতর আটটি ও মলদ্বার থেকে আট সোনার বার উদ্ধার করা হয়।

আটক ব্যক্তির নাম মাসুদ আহমেদ চৌধুরী (৪৩)। তাঁর বাড়ি কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলায়।

ঢাকা কাস্টমস হাউজ বৃহস্পতিবার তাদের ফেসবুক পেজে জানিয়েছে, দুপুর ১২টার দিকে মাসুদ আহমেদ চৌধুরী নামের ওই ব্যক্তি মালয়েশিয়া থেকে মালিন্দ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট নম্বর ওডি ১৬৪ এ বাংলাদেশে আসেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিমানবন্দরের গ্রিন চ্যানেলে তাঁকে স্বর্ণবহনের কথা জিজ্ঞাসা করলে তিনি তা যথারীতি অস্বীকার করেন। পরে শরীর তল্লাশি করে তাঁর পরনের শার্টের কফলিনের ভেতর ১০ পিস এবং কলারের ভেতর থেকে আট পিস সোনার বার উদ্ধার করা হয়। কিন্তু এতেও প্রিভেন্টিভ টিমের সন্দেহ দূর না হওয়ায় তাঁকে উত্তরার একটি হাসপাতালে নিয়ে এক্সরে করলে তাঁর রেক্টামে (মলদ্বার) স্বর্ণবহনের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। এরপর বিমানবন্দরের টয়লেটে যাত্রীর রেক্টাম থেকে আটটি সোনার বার উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার হওয়া ২৬টি সোনার বারের ওজন দুই কেজি ৬০০ গ্রাম, যার মূল্য প্রায় ১ কোটি ৩০ লাখ টাকা বলে শুল্ক কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। জিজ্ঞাসাবাদকালে আটক মাসুদ জানিয়েছেন, পেশায় তিনি একজন ব্যবসায়ী। বিমান অবতরণের আধা ঘণ্টা আগে তিনি এ সোনা মলদ্বারে প্রবেশ করান। মাসুদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা দায়ের করে থানায় সোপর্দ করা হবে বলে শুল্ক কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

error: দুঃখিত কুমিল্লার বার্তার কোন কনটেন্ট কপি করা যায় না।