খালেদার বক্তব্য কুরুচিপূর্ণ —কুমিল্লায় ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক ● সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, তিন পার্বত্য জেলায় পাহাড়ধসে মানবিক বিপর্যয় ঘটেছে। কিন্তু বিএনপি নেত্রী বেগম জিয়া দুর্গত এলাকায় না গিয়ে ঢাকায় বসে প্রেস ব্রিফিংকরে দুর্গত মানুষের জন্য মায়াকান্না করছেন। পার্বত্য জেলায় ভূমিধ্বসের ঘটনার সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিদেশ সফর প্রসঙ্গে খালেদা জিয়ার বক্তব্য অন্ধ আক্রোশের কুরুচিপূর্ন বর্হিপ্রকাশ।

মন্ত্রী বলেন, সরকার পার্বত্য এলাকায় পুরোদমে উদ্ধার ও ত্রাণ তৎপরতা চালাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সুইডেনে থেকেও পুরো ঘটনার তদারকি করছেন এবং দুর্গতদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে নির্দেশনা প্রদানসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়েছেন।

ওবায়দুল কাদের শুক্রবার সকালে কুমিল্লার দাউদকান্দি ‘মেঘনা-গোমতী সেতু টোলপ্লাজা অনলাইন ওয়েববেইজড এক্সেল লোড ওয়েয়িং স্কেল সিস্টেম বর্ধিতকরণ’ প্রকল্প উদ্বোধনের পর সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া দেশে অবস্থান করলেও তিনি বা তার দলের নেতারা দুর্গতদের খোঁজ খবর নেননি অথচ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সুইডেনে অবস্থান করলেও এই তথ্যপ্রযুক্তির যুগে তিনি সেখান থেকে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার খোঁজ খবর রাখছেন এবং প্রতিদিনের ত্রাণ তৎপরতা মনিটরিং করছেন। প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিবের নেতৃত্বে একটি টিম সার্বক্ষণিক দায়িত্ব পালন করছে এবং আমাদের সেনাবাহিনী উদ্ধার তৎপরতায় প্রাণপন চেষ্টা চালাচ্ছেন।

তিনি আরও বলেন, আগামী ঈদে ঘরমুখো যাত্রীদের যাতে কোনো প্রকার যানজটে পড়তে না হয় সেজন্য ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কসহ দেশের প্রধান প্রধান সড়কগুলোতে বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। দাউদকান্দি টোলপ্লাজার টোল আদায় এবং ওজন স্কেলে দায়িত্বরত টোল আদায়কারী প্রতিষ্ঠান সিএনএফ এর কর্মকর্তা মেজর (অব.) জিয়াউর রহমান জিয়া এবং তার লোকজন ব্যাপক দুর্নীতি করছে বলে সাংবাদিকদের এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে মন্ত্রী তাকে শাসিয়ে সতর্ক করেন এবং পরবর্তীতে দুর্নীতি হলে তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে তিনি হুঁশিয়ারি করেন।

এ সময় সওজ’র ঢাকা জোনের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী আবদুস সবুর, কুমিল্লা জোনের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. শাহাবুদ্দিন খান, দাউদকান্দি উপজেলা চেয়ারম্যান মেজর (অব.) মোহাম্মদ আলী, দাউদকান্দি পৌর মেয়র নাঈম ইউসুফ সেইন, দাউদকান্দি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আল-আমিন, দাউদকান্দি মডেল থানার ওসি মিজানুর রহমান প্রমুখ।

error: দুঃখিত কুমিল্লার বার্তার কোন কনটেন্ট কপি করা যায় না।