‘উন্নয়নধারা অব্যাহত রাখতে আওয়ামী লীগকে নির্বাচিত করুন’

শফিকুল ইসলাম পলাশ ● আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলেই দশের উন্নয়ন হয়। উন্নয়নধারা অব্যাহত রাখতে আওয়ামী লীগকে আগামী নির্বাচনে নির্বাচিত করার আহ্বান জানান রেলপথ মন্ত্রী মো. মুজিবুল হক। বিএনপি, জাতীয় পার্টি, জামায়াত ক্ষমতায় এলে দেশের কোনো উন্নয়ন হয় না। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে স্কুল, কলেজ, মাদরাসা, মক্তব, পুল-কালভার্ট যোগাযোগসহ সামাজিক জীবনের সকল ক্ষেত্রে উন্নয়ন সাধন করেছে।

শেখ হাসিনার সরকার রেল পথ যাগাযোগের ক্ষেত্রে ব্যাপক আধুনিকায়ন করেছে। তিনি বিগত বিএনপি সরকারের সমালোচনা করে বলেন, রেলের এঞ্জিন, বগি এবং নতুন কোনো রেলপথ নির্মণ করেনি। সে সময় রেলপথ ছিল শতভাগ অবহেলিত। রেলের হাজার হাজার কর্মকর্তা-কর্মচারীকে গোল্ডেল হ্যান্ডশেকের নামে চাকরীচ্যূত করে রেল পথকে ধ্বংস করে দিতে চেয়েছিল। আওয়ামী লীগ সরকারের মাধ্যমে রেলের ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পর্যন্ত রেলের তিন শ’ বিশ কিলোমিটার ডাবল লাইন করা হয়েছে, চট্টগ্রাম থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত রেল লাইন নির্মাণ কাজ শুরু করেছি। বর্তমানে রেলপথ মন্ত্রণালয়ে চুয়াল্লিশটি প্রকল্পের কাজ চলছে। ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পর্যন্ত সরাসরি বুলেট ট্রেন চালু করার একটি প্রকল্পও হাতে নেওয়া হয়েছে। যার ফলে দুই ঘণ্টার মধ্যে চট্টগ্রাম পৌঁছানো যাবে। গতকাল রবিবার হোমনা উপজেলার চান্দেরচর ইউনিয়নের রামপুর জামেয়া আরাবিয়া এমদাদুল উলুম মাদ্রাসায় বন্যা আশ্রয় কেন্দ্রের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

তিনি বিগত বিএনপি সরকারের আরও সমালোচনা করে বলেন, তাদের আমলে রেলের বাজেট ছিল মাত্র ৫ শ’ কোটি টাকা। বর্তমানে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর তা ১৬ হাজার ১৩৫ কোটি ২৯ লাখ টাকায় উন্নীত হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, যদি আপনারা আবারও আওয়ামী লীগ ও শেখ হাসিনাকে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব দেন তাহলে বাংলাদেশের একটি গ্রামও উন্নয়ন থেকে বাদ যাবে না। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা এত অল্প সময়ে দেশের যে উন্নয়ন করেছেন তা দেখে বিশ্ববাসী অবাক।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খান মো. নাজমুস শোয়েবের সভাপতিত্বে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি অধ্যক্ষ আবদুল মজিদ, হোমনা পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট মো. নজরুল ইসলাম, চৌদ্দগ্রাম উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান এবিএম বাহার, দাউদকান্দি সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মো. মহিদুল ইসলাম, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ উপ কমিটির সহ-সম্পাদক কামরুল হাসান মুরাদ, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান আবুল, নিটল-নিলয় গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা আহমাদ মেরী, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আবুল বাসার মোল্লা, বিআরডিবি চেয়ারম্যান মেজবাহ উদ্দিন সরকার প্রমুখ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন সহকারী পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা সাহিদুল হক দেওয়ান।